What is RAID || Different types of RAID

What is RAID

স্টোরেজ fault tolerance এর খুব গুরুত্বপূর্ন একটি অংশ। কোন একটা সিস্টেমের কিছু কম্পোনেন্টস বা উপাদান যদি কখনও অকার্যকর হয়ে পড়ে কোন কারনে তাহলে সেই অকার্যকারিতার পরেও সেই সিস্টেমটিকে সঠিকভাবে পরিচালনা করাই হল fault tolerance. যদি কোন কোম্পানি বা অর্গানাইজেশনের ডেটা সংক্রান্ত কিছু হয়ে থাকে যেমন ডিস্ক ফেইলিওর যার ফলস্বরুপ ডেটা লস হয়ে থাকে এবং এর কারনে কোম্পানির কর্ম পরিচালনায় গুরূত্বপূর্ণ প্রভাব পরে। আর এ কারনেই আমাদের নিশ্চিত করতে হয় যে যদি কোন কারনে কোন ডিস্ক অচল হয়ে পরে তবে সেটার কারনে যেন ডেটা লস না হয়। আর এ সমস্যা থেকে উত্তরনের জন্য সবচাইতে সেরা উপায় হল RAID.

RAID stands for Redundant Array of Independent or Inexpensive Disks. একটি RAID সেটাপে, ডেটা কপি করা হয় বা ছড়িয়ে দেয়া হয় একের অধিক ডিস্কে তাই কোন কারনে ডেটা ফেইলিউর হলেও সেগুলো হারিয়ে যায়না অন্য ডিস্কে কপি করে রাখাবার জন্য।

RAID একটি স্টোরেজ প্রযুক্তি যা পৃথক-পৃথক কয়েকটি ফিজিক্যাল হার্ড ডিস্ক একত্রিত করে একটি লজিকাল ড্রাইভ তৈরি করে যার জন্য একটি একক ইউনিটের তুলনায় আরও ভাল পারফরম্যান্স এবং অধিক নির্ভরযোগ্যতা প্রদান করে থাক। এটি ডেটা লস এবং ডাউনটাইম হ্রাস রোধ করার পাশাপাশি ডেটা সংরক্ষণ এবং অ্যাক্সেসের গতি বৃদ্ধি করে।

উচ্চ নির্ভরযোগ্যতাসম্পন্ন অ্যাপ্লিকেশন এবং যাদের অনেক স্টোরেজ বা উচ্চ ডেটা স্থানান্তরের জন্য অনেক স্পিডের প্রয়োজন হয় তাদের জন্য RAID ব্যবহার আদর্শ। সমস্ত ওয়েবসাইট এবং ক্রিটিকাল অনলাইন এবং অফলাইন অ্যাপ্লিকেশনগুলির কার্যকারিতা বৃদ্ধি করতে এবং ডেটা হ্রাস বা ডাউনটাইম প্রতিরোধে RAID ব্যবহার করা উচিত।

শেয়ার্ড হোস্টিং, ভিপিএস অথবা ডেডিকেটেড সার্ভারের প্রায় সব ফিজিক্যাল সার্ভারগুলোতেই ডিস্ক ড্রাইভ থাকে যা একটি RAID সেটাপে কাজ করে। সাধারণত, কমপক্ষে একটি ড্রাইভ প্যারিটির জন্য কনফিগার করা থাকে এবং সমস্ত কপি ডেটার অতিরিক্ত একটি বিট থাকে যা কোন একটি ডিস্কের কোন কারনে ফেইলিউর হলে তার ডেটা রিকোভার করতে সাহায্য করে থাকে।

RAID ডেডিকেটেড, ভিপিএস বা শেয়ার্ড সার্ভারগুলিতে ব্যবহার করলে সেসব সার্ভারের কার্যকারিতা এবং ডেটা রিডানডেন্সি বাড়ায়। তবে এটি কোনও ভাইরাসের আক্রমণ বা বিপর্যয়ের ক্ষেত্রে অফসাইট ডেটা ব্যাকআপের প্রয়োজনীয়তা হ্রাস করে থাকে না। সাধারণত, বেশিরভাগ প্রভাইডার তাদের সার্ভার এবং ব্যাকআপ উভয় সিস্টেমের জন্যই RAID ব্যবহার করে থাকেন। সার্ভারে কোনও ডিস্ক বা ব্যাকআপ স্টোরেজে কোনও সমস্যা হলে এটি ডাটা সুরক্ষা এবং ডেটা পুনরুদ্ধারের গতি বৃদ্ধি করে।

যদিও RAID প্রাথমিকভাবে সার্ভারগুলির জন্য ডিজাইন করা হয়েছিল তবুও ইনডিভিজুয়াল কেউ এবং ডেটা-ইনটেনসিভ ব্যবহারকারী যেমন ভিডিও এবং অডিও এডিটররা এটি READ এবং WRITE অপারেশন উন্নত করার লক্ষ্যে ব্যবহার করতে পারেন।

সাধারনত সবধরনের RAID অ্যারেকেই স্ট্যান্ডার্ড, নন-স্ট্যান্ডার্ড অথবা নেস্টেড বা হাইব্রিড RAID Level-এ সংজ্ঞায়িত করা হয়।

  • স্ট্যান্ডার্ড Raid level – Raid 0, 1,2,3,4,5 এবং Raid 6.
  • নন-স্টান্ডার্ড Raid level – Raid 10, 50, 53 এবং JOBD (Just a bunch of disks) Raid.
  • নেস্টেড বা হাইব্রিড Raid level – Raid 3D, Enhanced Raid 1E এবং Enhanced Raid 5E.

আমরা এখানে সবচাইতে কমন RAID গুলো (Raid 0, Raid 1, Raid 5, Raid 6, এবং Raid 10) নিয়ে আলোচনা করার চেষ্টা করব।

Different types of RAID

RAID 0——RAID 0 fault tolerant নয়। এমনকি RAID 0-কে RAID ও বলা চলে না কারন এটি যেমন fault tolerant নয় পাশাপাশি এটি ডেটা লসের শংকাও বৃদ্ধি করে থাকে। কারন RAID 0 তে ডেটার ডুপ্লিকেট হয়না কিন্ত এটি দুটি পৃথক ডিস্কে ছড়িয়ে পরে। তাই যদি কোন একটি ডিস্ক কখনও ফেইল হয় বা আপনি নিজে থেকে নষ্ট করে ফেলেন তাহলে সব ডেটা হারিয়ে যাবে। সুতরাং, আপনি যদি কখনও RAID 0 ব্যবহার করতে চান তবে তার একমাত্র কারন হবে এর স্পীড কারন, যখন একটির পরিবর্তে দুটি ডিস্ক কন্ট্রোলার ব্যবহার হবে তখন স্বাভাবিকভাবেই ডেটা অ্যাক্সেস অনেক দ্রুত হবে।সেসব আপ্লিকেশনের জন্য RAID 0 বেষ্ট অপশন যেগুলো নন-ক্রিটিক্যাল ডেটা প্রসেস করে কিন্ত অনেক হাই পার্ফরমেন্স এর প্রয়োজন পরে থাকে।

RAID 1——RAID 1 হ’ল fault tolerant. RAID 1 সেটাপে, একাধিক ডিস্কে ডেটা কপি হয়ে থাকে। যদি মনে করি দুটি ডিস্ক রয়েছে ডিস্ক 1 এবং ডিস্ক 2 সেক্ষেত্রে ডিস্ক 2-তে ডিস্ক 1 এর ডেটাটির হুবহু একই কপি থাকে সুতরাং, কোনও একটি ডিক্সের ফেইলিউর হলেও কোনও ডেটা লস হবে না কারণ, অন্য একটি ডিস্কে ডেটার সব কপি হয়ে থাকবে।
সেসব সেসব আপ্লিকেশনের জন্য RAID 1 বেষ্ট অপশন যেগুলোর ডেটার অ্যাভাইলেবিলিটি এবং রিডানডেন্সি অনেক গুরুত্বপূর্ণ।

RAID 5——একটি RAID 5 সেটাপে ডেটা ডুপ্লিকেট হয় না, তবে এটি একাধিক ডিস্কে ডেটা ছড়িয়ে ফেলে। এখানে ইনফরমেশনের আরও একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ রয়েছে যা সমস্ত ডিস্কে সমানভাবে ছড়িয়ে পড়ে এবং এই ইনফরমেশনটিকে প্যারিটি বলে। ডিস্ক ফেইলিওর এর ক্ষেত্রে ডেটা পুনর্নির্মাণের জন্য প্যারিটি ব্যবহার করা হয়। একটি RAID 5 সেটাপে যদি কোন একটি ডিস্ক ফেইলিওর হয় তাহলে আপনি কোন ডেটা হারাবেন না কারন, RAID 5 ডিজাইন-ই হয়েছে একটা সিঙ্গেল ডিস্ক ফেইলিওর হ্যান্ডেল করবার জন্য। তাই কোন একটি ডিস্ক ফেইলিওর হলে আপনাকে যা করতে হবে তা হ’ল, ফেইলড ডিস্কটিকে নতুন করে প্রতিস্থাপন করতে হবে এবং তারপরে RAID 5 যা করবে সেটি হল, এটি অন্যান্য ডিস্কের প্যারিটির ইনফরমেশন ব্যবহার করে নতুন প্রতিস্থাপিত ডিস্কটি পূনর্গঠন করবে। তবে, যদি দুটি ডিস্ক একইসাথে ফেইলিওর হয় RAID 5 সেটাপে তাহলে সেক্ষেত্রে সমস্ত ডেটা নষ্ট হয়ে যাবে আর এর কারণ RAID 5 একই সাথে দুটি ডিস্ক ফেইলিওর পরিচালনা করার জন্য ডিজাইন করা হয়নি। এটি একবারে কেবল একটি ডিস্ক ফেইলিওর পরিচালনা করতে পারে।RAID 5 এর একটি নেতিবাচক দিক রয়েছে আর সেটি হল, যেহেতু পুরো ডিস্ক সমান পরিমান প্যারিটি সংরক্ষণ করতে ব্যবহৃত হয় তাই এই অ্যারেতে সংরক্ষণ করা যেতে পারে এমন সমষ্টিগত ডেটার পরিমাণ এটি কমিয়ে দেয়।উদাহরণস্বরূপ, আমরা যদি চারটি ডিস্ক ব্যবহার করি এবং যদি এই চারটি ডিস্কের চারটিই 1 টেরাবাইট করে হয় তবে চারটি ডিস্ক মোট 4 টেরাবাইট হয়। কিন্ত একটি RAID 5 সেটাপে ডেটা সংরক্ষণের জন্য যে পরিমাণ স্টোরেজ ব্যবহৃত হবে তা 3 টেরাবাইট সমপরিমান হবে কারণ একটি সম্পূর্ণ ডিস্কের সমতুল্য পরিমান ব্যবহৃত হবে প্যারিটি স্টোর করতেই।
RAID 5 একটি অল-রাউন্ড সিস্টেম যা দক্ষ স্টোরেজকে দুর্দান্ত সুরক্ষা এবং শালীন পারফরম্যান্সের সাথে সম্মিলিত করে। এটি ফাইল এবং অ্যাপ্লিকেশন সার্ভারগুলির জন্য আদর্শ যেখানে সীমিত সংখ্যক ডেটা ড্রাইভ রয়েছে।

RAID 6——RAID 6 ব্যবহার করার জন্য আপনার চার বা তার অধিক ডিস্ক থাকতে হবে। RAID 6 হ’ল RAID 5 এর মতো যেখানে সমস্ত ডিস্কে ডেটা স্ট্রাইপ করা হয় এবং সমস্ত ডিস্কে প্যারিটি স্প্রেড হয়। তবে পার্থক্যটি হ’ল, RAID 6-এ প্যারিটি সমস্ত ডিস্কে দু’বার করে ছড়িয়ে পড়ে এবং এই ডাবল প্যারিটির কারণটি হল এটি যেন একই সাথে দুটি ডিস্ক ফেইলিওর হ্যান্ডেল করতে পারে। সুতরাং RAID 6-এ, যদি একই সাথে দুটি ডিস্ক ফেইলিওর হয়, যা খুব বিরল তবে কোনও ডেটা নষ্ট হবে না এবং আপনাকে যা করতে হবে তা হ’ল, ফেইলড ডিস্কগুলি রিপ্লেস করা এবং তারপরে RAID 6 অন্য ডিস্কগুলি থেকে ডাবল প্যারিটি ব্যবহার করে নতুন ডিস্কগুলিতে ডেটা পুনর্নির্মাণ করবে। উদাহরণস্বরূপ, RAID 6-এ যদি 4-টি ড্রাইভ ব্যবহার করা হয় তাহলে এর অর্থ এই যে দুটি ড্রাইভ অ্যাকচুয়াল ডেটা স্টোরেজের জন্য ব্যবহৃত হবে এবং বাকি দুটি ড্রাইভ ডাবল প্যারেন্টিং-এর জন্য ব্যবহার করা হবে। সুতরাং যদি এই ডিস্কগুলির প্রতিটি 1 টেরাবাইট করে হয় তাহলে 4 টি ড্রাইভ টোটাল 4 টেরাবাইট সমান হবে এবং এরমধ্যে কেবলমাত্র 2 টেরাবাইট ডেটা স্টোর করতে এবং অন্য 2 টেরাবাইট ডাবল প্যারিটি স্টোর করার জন্য ব্যবহৃত হবে। এটিও লক্ষ্য করা জরুরী যে RAID 5 এবং RAID 6 এর READ পারফরম্যান্স প্রায় একই রকম তবে WRITING ডেটার ক্ষেত্রে RAID 6 খুব বেশি সাফার করে থাকে কারণ, যেহেতু RAID 6 এর দুটি স্বতন্ত্র প্যারিটি ব্লক লিখতে হয় একটির জায়গায় তাই এর WRITE পারফরম্যান্স RAID 5 এর তুলনায় অনেক ধীর।

RAID 6 একটি অল-রাউন্ড সিস্টেম যা কর্মদক্ষ স্টোরেজ সংযুক্ত করার পাশাপাশি এক্সিলেন্ট সিকিউরিটি ও ডিসেন্ট পার্ফরমেন্স প্রদান করে। এটি সেসব ফাইল এবং অ্যাপ্লিকেশন সার্ভারগুলিতে RAID 5 এর চেয়ে বেশি পছন্দনীয় যেগুলো ডেটা স্টোরেজ এর জন্য অনেকগুলি বড় ড্রাইভ ব্যবহার করে থাকে।

RAID 10——

এটি RAID 1 এবং RAID 0 এর সমন্বয় করে এবং RAID 10 এর ক্ষেত্রে আপনাকে সর্বনিম্ন চারটি ডিস্ক ব্যবহার করতে হবে। একটি RAID 10 সেটাপে চারটি ডিস্ক ব্যবহার করা হলে , দুটি ডিস্কের একটি সেট RAID 1 সেটাপ ব্যবহার করে মিরর করে থাকে আর তারপরে দুটি ডিস্কের দুটি সেট-ই RAID 0 ব্যবহার করে ডেটা স্ট্রাইপ করে থাকে। সুতরাং RAID 10 fault tolerance এর সুবিধা RAID 1 থেকে নিয়ে থাকে এবং RAID 0 থেকে স্পিডের সুবিধা নিয়ে থাকে। তবে একটি RAID 10 এর ডাউনসাইড হ’ল, আপনি কেবলমাত্র 50% ক্যাপাসিটি আপনার ডেটা স্টোরেজ এর জন্য ব্যবহার করতে পারবেন।

যেসব কোম্পানি হাই পারফর্মেন্স এবং ডেটা সিকিউরিটি চায় তাদের জন্য RAID 10 ব্যবহার করা আদর্শজনক।

নিচের টেবিলটিতে কমন RAID লেভেলগুলোর বৈশিষ্ট্য এবং যেসব অ্যাপ্লিকেশনগুলোতে সাধারণত RAID ব্যবহার করা হয়  তা সম্পর্কে মোটামুটি ওভারভিউ দেয়া হয়েছে।

What is RAID || Different types of RAID
Scroll to top